মঙ্গলবার, ১০ ডিসেম্বর ২০১৯, ১০:৪৫ পূর্বাহ্ন
বিজ্ঞাপন:
>>> পায়রা মিডিয়া এন্ড কমিনিউকেশন (প্রা:) লিমিটেডে আপনাকে স্বাগতম ** আপনার পন্য এবং প্রতিষ্ঠানের বিজ্ঞাপন দিতে যোগাযোগ করুন: +৮৮ ০১৭১২২৭৬২৫৮ ** বার্তা সংক্রান্ত: ০১৭২১০০৯০১৭ ** নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি: দৈনিক মানবকালে কিছু সংখ্যক স্টাফ রিপোর্টার, রিপোর্টার এবং নিউজ রুম এডিটর নিয়োগ দেয়া হবে। আগ্রহীরা অফিসে যোগাযোগ করুন **

এতিমখানা ভবনের ছাদ ধসে শিক্ষকসহ অর্ধশতাধিক শিক্ষার্থী আহত

  • আপডেট টাইম রবিবার, ২৪ নভেম্বর, ২০১৯, ৪.০৪ অপরাহ্ণ
  • ২০ বার পড়া হয়েছে

চাঁদপুর প্রতিনিধি : চাঁদপুরের মতলব উত্তর উপজেলার ফরাযীকান্দি উয়েসীয়া কমপ্লেক্সের অন্তর্ভূক্ত আল-আমিন এতিম খানা মাদ্রাসার দ্বিতীয় তলার ফ্লোর (১ম তলার ছাদ) ধ্বসে পড়ে এক শিক্ষকসহ অর্ধশতাধিক মাদ্রাসা ছাত্র আহত হয়েছে। শনিবার (২৩ নভেম্বর) দিবাগত রাত পৌনে ১০ টায় এ ঘটনা ঘটে। স্থানীয়দের সহায়তায় আহতদের উদ্ধার করে মতলব উত্তর ও দক্ষিণ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে।

মাদ্রাসা কর্তৃপক্ষ জানায়, আগামী ১৬ ডিসেম্বর বিজয় দিবসে ডিসপ্লে অংশ গ্রহনের জন্য মাদ্রাসার ভবনের দোতলার বারান্দায় টিম মিটিং চলাকালীন সময় ফ্লোর ধ্বসে পড়ে। এসময় ওই মিটিংয়ে থাকা সকলেই আহত হয়। আহতদের স্থানীয়ভাবে চিকিৎসা দেওয়া হয়। এদের মধ্যে গুরুতর আহতদের স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে। মতলব উত্তর স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নেওয়া হয় ১৭ জন ছাত্রকে। এরমধ্যে ৬ জনকে উন্নত চিকিৎসার জন্য ঢাকায় পাঠানো হয়। ১১ জন ভর্তি আছে। সিয়াম নামে এক ছাত্র ঢাকার পঙ্গ হাসপাতালে মৃত্যু সাথে পাঞ্জা লড়ছে বলে জানা গেছে।

অপরদিকে আহত আরো ২৬ জনকে নেওয়া হয়েছে মতলব দক্ষিণ স্বাক্ষ্য কমপ্লেক্সে। তাদের মধ্যে ৮ জনকে উন্নত চিকিৎসার জন্য চাঁদপুর সদর হাসপাতালে নেওয়া হয়। ৯ জন ভর্তি আছে, বাকী ৯ জনকে প্রাথমিক চিকিৎসা দিয়ে ছাড়পত্র। গুরুতর আহত শিক্ষক মোহাম্মদ হোসেনকে চাঁদপুর সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। শিক্ষকসহ মোট ৪৪ জনকে হাসপাতালে নেওয়ার খবর পাওয়া গেছে। এছাড়াও স্থানীয়ভাবে প্রায় ১৫ জনকে চিকিৎসা দেওয়া হয়েছে। জানা গেছে, অধিকাংশ আহতদের হাত ও পায়ের হাড় ভেঙ্গে গেছে।

মাদ্রাসার আবাসিক কর্মকর্তা শাহেন শাহ সেলিম বলেন, সাধারনত ওই ভবনটি আমরা ব্যবহার করি না। কিন্তু ওই ভুলক্রমে শিক্ষক মোহাম্মদ হোসেন ছাত্রদের নিয়ে মিটিংয়ে বসেছিল। হঠাৎ করে ভাংচুরের শব্দ হয়ে ওঠে। আমরা দ্রুত গিয়ে দেখি ছাদ ধ্বসে পড়েছে। তাৎক্ষণিক আহতদেরকে উদ্ধার করে চিকিৎসার জন্য পাঠাই।

ফায়ার সার্ভিসের উপ-সহকারি পরিচালক ফরিদ আহমেদ বলেন, খবর পেয়ে আমরা চারটি ইউনিট ঘটনাস্থলে পৌছাই। এসে আহত কয়েকজনকে উদ্ধার করতে সক্ষম হয়েছি। সকল কার্যক্রম শেষে ওই ভবনটি ব্যবহার না করার জন্য পরামর্শ দিয়েছি মাদ্রাসা কর্তৃপক্ষকে।
মাদ্রাসা সুপার মাও. আতাউল করিম মুজাহিদ বলেন, মাদ্রাসার সকল ছাত্ররা মিটিংয়ে বসেছিল। হঠাৎ করেই এ ঘটনা ঘটে। পরে সবাই মুর্হুতেই এলোমেলো হয়ে যায়।

এদিকে ঘটনার পর চাঁদপুর-২ আসনের সংসদ সদস্য অ্যাড. নূরুল আমিন রুহুল, চাঁদপুর জেলা প্রশাসক মাজেদুর রহমান খান, পুলিশ সুপার মাহবুবুর রহমান পিপিএম, উপজেলা নির্বাহী অফিসার শারমিন আক্তার, ওসি মো. নাসির উদ্দিন ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন। এসময় স্থানীয় সাংসদ ৫০ টি কম্বল, ১০ বান্ডেল ঢেউটিন ও নগদ ৩০ হাজার টাকা মাদ্রাসায় অনুদান প্রদান করেন।

Sharing

শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

themesbazaranobkal5425
© All rights reserved © Payra Media & Communication (Pvt) Ltd
Theme Download From ThemesBazar.Com
shares