২৪শে অক্টোবর, ২০২০ খ্রিস্টাব্দ ।। ৮ই কার্তিক, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

রিপোর্টারের নাম :
  • আপডেট টাইম : ২৩ সেপ্টেম্বর- ২০১৯, ৫:৫৩ অপরাহ্ণ
  • 508 বার পড়া হয়েছে

সৌদি আরবের পররাষ্ট্রমন্ত্রী আদেল আল-জুবায়ের বলেছেন, তার দেশ ইরানের সঙ্গে ভালো সম্পর্ক চায়। কিন্তু তেহরান এই সুযোগকে মৃত্যু এবং ধ্বংসের সঙ্গে মিলিয়ে ফেলছে। রোববার মার্কিন সংবাদমাধ্যম স্কাই নিউজকে দেয়া এক সাক্ষাৎকারে সৌদি এই পররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, এটা প্রমাণিত যে, গত সপ্তাহের তেলক্ষেত্রে হামলার পেছনে ইরান জড়িত। এটাকে যুদ্ধাপরাধ হিসেবে বিবেচনা করা হবে। তিনি বলেন, আমরা যেকোনো উপায়ে যুদ্ধ এড়ানোর প্রত্যাশা করছি…আমরা আমাদের দেশ সংস্কারের ওপর গুরুত্ব দিচ্ছি। গত ১৪ সেপ্টেম্বর সৌদি আরবের রাষ্ট্রীয় মালিকানাধীন কোম্পানি আরামকোর দু’টি তেলক্ষেত্রে ভয়াবহ ড্রোন হামলা হয়। ইয়েমেনের বিদ্রোহী গোষ্ঠী হুথি তেলক্ষেত্রে হামলার দায় স্বীকার করলেও সৌদি আরব, যুক্তরাষ্ট্র ও যুক্তরাজ্য ইরানকে দায়ী করছে। তবে ইরান হামলার এই অভিযোগ অস্বীকার করেছে।

আল-জুবায়ের জোর দিয়ে বলেছেন যে, ওই হামলা ইরানি ভূখণ্ড থেকে চালানো হয়েছে বলে ধারণা করছেন তারা। কারণ এসব ক্ষেপণাস্ত্র এবং ড্রোন উড়ে এসেছে সৌদির উত্তরাঞ্চল থেকে। কিন্তু ইতোমধ্যে দেশটির প্রকাশিত বেশ কিছু নথিতে সৌদির উত্তরাঞ্চল থেকে হামলার ব্যাপারে কোনো তথ্য দেয়া হয়নি। সেসব উপাত্তের সঙ্গে সৌদি এই মন্ত্রীর দেয়া তথ্য সাংঘর্ষিক।

Sharing

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো খবর
shares